শনিবার, ৩ ডিসেম্বর ২০২২

ব্রিটিশদের হতাশ করে মারে-রাদুকানুর বিদায়

উইম্বলডন

নিজস্ব প্রতিবেদক

৩০ জুন ২০২২, ০৯:২০ পূর্বাহ্ন

ব্রিটিশদের হতাশ করে মারে-রাদুকানুর বিদায়

উইম্বলডনে ব্রিটিশদের জন্য বুধবারটা খুবই বাজে কেটেছে। প্রতিযোগিতাটিতে অংশ নেওয়া ৪৪ ব্রিটিশদের মধ্যে কেবল অ্যান্ডি মারে আর এমা রাদুকানুরই যে ছিল গ্র্যান্ড স্ল্যাম জেতার অভিজ্ঞতা, সেই মারে-রাদুকানুই বিদায় নিয়েছেন একই দিনে। অঘটন ঘটেছে আরও একটা। ফ্রেঞ্চ ওপেনের ফাইনালিস্ট ক্যাসপার রুডের বিদায়ঘণ্টাও বেজে গেছে এই দিনে। তবে নোভাক জকোভিচ অবশ্য কোনো ভুলচুক হতে দেননি, জয় তুলে নিয়ে পা রেখেছেন তৃতীয় রাউন্ডে। 

দিনের শুরুটা হয় রাদুকানুর বিদায়ে। ইউএস ওপেনের চ্যাম্পিয়ন ও উইম্বলডনের দশম বাছাই রাদুকানু ফরাসি খেলোয়াড় ক্যারোলিন গার্সিয়ার বিপক্ষে ম্যাচটায় দাঁড়াতেই পারেননি শুরু থেকে। হেরেছেন ৩-৬, ৩-৬ সেটে।  

ব্রিটিশদের হতাশার ষোলকলা পূরণ হয় সেন্টার কোর্টে দিনের শেষ খেলায়। জন ইসনারের বিপক্ষে দ্বিতীয় রাউন্ডের এই লড়াইয়ে তিনি শুরুতেই পিছিয়ে পড়েন ৪-৬ সেটে হেরে। পরের সেটে লড়াইয়ের আভাস দেন তিনি, খেলা নিয়ে যান টাইব্রেকারে। তবে সেখানেও শেষমেশ তিনি হারেন ৬-৭ (৪-৭) ব্যবধানে। পরের সেটটা আবারও গড়াল টাইব্রেকারে, সেখানে মারে হাসলেন শেষ হাসিটা, জিতলেন ৭-৬ (৭-৩) ব্যবধানে। তবে চতুর্থ সেটটা ৪-৬ ব্যবধানে হেরে বসলে বিদায় নিশ্চিত হয় মারের।

পুরুষদের টেনিসে এই দিনে অঘটন ঘটেছে আরও একটা। ফরাসি উগো হ্যামবার্টের কাছে হেরে বসেছেন গেল ফ্রেঞ্চ ওপেনের ফাইনালিস্ট ক্যাসপার রুড। ম্যাচের শুরুটা অবশ্য এমন অঘটনের ইঙ্গিত দেয়নি, ৬-৩ ব্যবধানে জিতেছিলেন রুড। তবে পরের তিন সেটে যথাক্রমে ৬-২, ৭-৫ ও ৬-৪ ব্যবধানের জয় তুলে নিয়ে ফ্রেঞ্চ ওপেনের ফাইনালিস্ট ও দ্বিতীয় বাছাই রুডের বিদায়ঘণ্টা বাজিয়ে দেন ফরাসি উগো।

তবে নোভাক জকোভিচ অবশ্য কোনো সমস্যায় পড়েননি এদিন। প্রতিযোগিতার শীর্ষ এই বাছাই ২ ঘণ্টা দীর্ঘ এক লড়াইয়ে অস্ট্রেলিয়ার থানাসি কোক্কিনাকিসকে হারান ৬-১, ৬-৪, ৬-২ গেমে। তাতেই তৃতীয় রাউন্ড নিশ্চিত হয়ে যায় তার। পরের রাউন্ডে তিনি খেলবেন মিয়োমির ক্রেচমানোভিচের বিরুদ্ধে।


সর্বশেষ

উপরে নিয়ে চলুন